বৈঠক তৃণমূল ও অকালি দলের

রাজনীতি

কৃষি আইনের প্রতিবাদে আন্দোলনে পথে নেমেছে দেশের কৃষকেরা। ৮ই ডিসেম্বর সারা ভারত জুড়ে বনধের ডাক দিলেন বিক্ষোভকারী কৃষকরা। দীর্ঘ বৈঠকের পরও মেলেনি কোন রফা সূত্র। শনিবার আবারও হবে কেন্দ্রীয় সরকারের প্রতিনিধি ও কৃষকদের বৈঠক। তার মাঝেই দেশের কৃষক আন্দোলনকে সমর্থন জানিয়ে পথে নামছে তৃণমূল কংগ্রেস। তার আগেই শনিবার কৃষক আন্দোলনের অন্যতম মুখ তথা অকালি নেতা প্রেমসিং চন্দু মাজরার নেতৃত্বে কলকাতায় তিন সদস্যের প্রতিনিধি দল এসে পৌঁছান। তৃণমূল ভবনে অকালি নেতাদের সাথে বৈঠক করেন তৃণমূলের সাংসদ তথা সুদীপ বন্দ্যোপাধ্যায়, ডেরেক ও ব্রায়েনের সাথে। বৈঠকে সর্বভারতীয় আন্দোলনের রূপরেখা নিয়ে আলোচনা হয়, সাথেই আগামী ৮ থেকে ১০ ডিসেম্বর কলকাতায় গাঁধী মূর্তির পাদদেশে অবস্থান বিক্ষোভে বসছে তৃণমূল। তবে ১০ ডিসেম্বরে গাঁধী মূর্তির পাদদেশে অবস্থানে বসবেন খোদ মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বৈঠকের পর লোকসভায় তৃণমূলের দলনেতা বলেন,অবিলম্বে কৃষি আইন প্রত্যাহার করতে হবে সরকারকে। তিনটি বিল পাঠাতে হবে স্ট্যান্ডিং অথবা সিলেক্ট কমিটিতে। সাথেই তিনি জানান, এই বিলে কোথাও MSP এর উল্লেখ নেই। অকালি নেতা প্রেম সিংও বলেন,কৃষি প্রত্যাহার করতেই হবে সরকারকে। এই নতুন বিলে ন্যূনতম সহায়ক মূল্যের কোনও নিশ্চয়তা নেই। এই আন্দোলন আর দেশে থেমে নেই, এই আন্দোলন অন্তঃরাষ্ট্র হয়ে গেছে। কানাডার প্রধানমন্ত্রীর কথাও উল্লেখ করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *